Wednesday, December 26, 2018

অন্ডকোষের প্রদাহ বা অরকাইটিস (Orchitis) কি ? এর কারণ, লক্ষণ এবং চিকিৎসা পদ্ধতি

অরকাইটিস (Orchitis) হলো পুরুষের টেস্টিস বা অন্ডকোষের প্রদাহ অর্থাৎ অন্ডকোষ ফুলে যাওয়া, ব্যথা করা ইত্যাদি। এটি একটি বা দুটি অন্ডকোষের ক্ষেত্রে হতে পারে। অনেকে একে টেস্টিস ইনফেকশনও বলে থাকেন। অরকাইটিস বা অণ্ডকোষের প্রদাহ বিভিন্ন ধরনের ব্যাকটেরিয়া বা ভাইরাস দ্বারা ঘটতে পারে। এটা সাধারণত এপিডিডাইমিসের প্রদাহের ফলস্বরূপ হয়। অণ্ডকোষের শেষ প্রান্তে থাকে এপিডিডাইমিস। এটা একটি নল, যা ভাস ডিফারেন্স (শুক্রবাহী নালি) ও অণ্ডকোষকে সংযুক্ত করে।
অরকাইটিসের সবচেয়ে সাধারণ ভাইরাসজনিত কারণ হচ্ছে মাম্পস। মাম্পসের প্রায় ৩০ শতাংশ রোগীর অসুস্থতার সময় অরকাইটিস হয়। এটা সবচেয়ে বেশি হয় বয়ঃসন্ধিকাল পার হয়ে আসা ছেলেদের। ১০ বছর বয়সের আগে এটা তেমন একটা দেখা যায় না। এটা সাধারণ মাম্পস হওয়ার চার থেকে ছয় দিন পরে ঘটে। অরকাইটিস রয়েছে এমন এক-তৃতীয়াংশ ছেলেদের এটা ঘটে থাকে মাম্পসের কারণে। পরিণতিতে অণ্ডকোষ ছোট হয়ে যায়।

২-২০ শতাংশ পুরুষের অরকাইটিস হয় বিরল রোগ ব্রুসেলোসিসের কারণে। অরকাইটিস বা অণ্ডকোষের প্রদাহ প্রোস্টেট বা এপিডিডাইমিসের সংক্রমণের কারণে হতে পারে। যৌন সংক্রামক রোগ যেমন গনরিয়া ও ক্লামাইডিয়ার কারণেও এটা হতে পারে। সাধারণত ১৯ থেকে ৩৫ বছর বয়সী পুরুষদের যৌনবাহিত কারণে অরকাইটিস বা অণ্ডকোষের প্রদাহ বেশি হয়।

অরকাইটিস (Orchitis) - লক্ষণ

  • অণ্ডথলি ফুলে যাওয়া
  • অণ্ডকোষে ব্যথা হওয়া
  • ফুলে যাওয়া ও ভারী বোধ হওয়া
  • মাঝে মাঝে বীর্যে রক্ত যাওয়া
  • কুঁচকিতে ব্যথা অনুভব করা
  • যৌনসঙ্গমের সময় কিংবা বীর্যপাতের সময় ব্যথা করা
  • প্রস্রাবে ব্যথা ও জ্বালাপোড়া করা

অরকাইটিস (Orchitis) - কারণ

  • বয়স ৪৫ বছরের বেশি
  • মাম্পস রোগের বিরুদ্ধে অপর্যাপ্ত প্রতিরোধ ক্ষমতা
  • মূত্রপথের জন্মগত সমস্যা
  • জনন-মূত্রপথে অস্ত্রোপচার
  • অস্বাভাবিক যৌন আচর
  • যৌনসঙ্গিনীর আগে কোনো যৌনবাহিত রোগের ইতিহাস
  • একাধিক যৌনসঙ্গি
  • গনরিয়া অথবা অন্য যৌনবাহিত রোগের ইতিহাস
  • দীর্ঘদিন ফলিস ক্যাথেটারের ব্যবহার

অরকাইটিস (Orchitis) - জটিলতা

অরকাইটিসের কারণে পুরুষের প্রজনন ক্ষমতা নষ্ট হয়ে যেতে পারে এবং একটি বা দু’টি অণ্ডকোষই ছোট হয়ে যেতে পারে। অরকাইটিসের কারণে আরো যেসব জটিলতা দেখা দিতে পারে সেসবের মধ্যে রয়েছে অণ্ডথলিতে ফোড়া হওয়া, অণ্ডকোষে রক্তপ্রবাহ কমে যাওয়া, অণ্ডথলির ত্বকে ফিস্টুলা হওয়া এবং দীর্ঘস্থায়ী এপিডিডাইমিসের প্রদাহ হওয়া। অণ্ডথলিতে কিংবা অণ্ডকোষে তীব্র ব্যথা হলে তাৎক্ষণিক অপারেশনের প্রয়োজন হয়। যদি আপনার অণ্ডথলিতে কিংবা অণ্ডকোষে তীব্র ব্যথা হয়, তাহলে দ্রুত হোমিও চিকিৎসা নেয়া জরুরী।

অরকাইটিস (Orchitis) - চিকিৎসা

যেকোনো চিকিৎসার প্রথমে আপনাকে রোগ সম্পর্কে নিশ্চিত হতে হবে। যদি রোগটি ব্যাকটেরিয়া জনিত কারনে হয়ে থাকে, তাহলে এলোপ্যাথিক চিকিৎসকগণ আপনাকে আপনাকে অ্যান্টিবায়োটিক ওষুধ গ্রহণ করতে বলবেন। গনরিয়া বা ক্লামাইডিয়ার ক্ষেত্রে যৌনসঙ্গিনীকেও চিকিৎসা দিতে হবে। এই সমস্যার ভালো একটি চিকিৎসা হলো হোমিওপ্যাথি। এর জন্য অভিজ্ঞ একজন হোমিও চিকিৎসকের পরামর্শক্রমে চিকিৎসা নেয়া জরুরী। 
অন্ডকোষের প্রদাহ বা অরকাইটিস (Orchitis) কি ? এর কারণ, লক্ষণ এবং চিকিৎসা পদ্ধতি ডাঃ ইমরান - ডিএইচএমএস, পিডিটি (হোমিও মেডিসিন), ঢাকা 5 of 5
অরকাইটিস (Orchitis) হলো পুরুষের টেস্টিস বা অন্ডকোষের প্রদাহ অর্থাৎ অন্ডকোষ ফুলে যাওয়া, ব্যথা করা ইত্যাদি। এটি একটি বা দুটি অন্ডকোষের ক্ষেত্...
ডাঃ ইমরান; ডিএইচএমএস(হোমিওপ্যাথি) এবং ডিএমএস(অ্যালোপ্যাথি), ঢাকা।
আনোয়ার টাওয়ার, আল-আমিন রোড, কোনাপাড়া, যাত্রাবাড়ী, ঢাকা।
ফোন : ০১৬৭১-৭৬০৮৭৪ এবং ০১৯৭৭-৬০২০০৪

সকল আপডেট পেতে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন আমাদের সাথে।

No comments:

Post a Comment