শনিবার, ১২ জানুয়ারী, ২০১৯

জরায়ুর স্থানচ্যুতি বা জরায়ু নেমে আসা (Uterine/Genital Prolapse) কারণ, উপসর্গ ও প্রতিকার

মহিলাদের Pelvic Region এ যে সকল প্রজনন অঙ্গ আছে সেগুলি যদি স্বাভাবিক অবস্থান থেকে নিচে নেমে আসে তাহলে তাকে Genital Prolapse বলা হয়ে থাকে। আমাদের আজকের আলোচনার বিষয় হল জরায়ুর নেমে আসা (Uterine Prolapse) এর কারণ, উপসর্গ ও প্রতিকার সম্পর্কে বিস্তারিত থাকছে আজকে। মূলতঃ নারীদের বস্তিদেশ অর্থাৎ Pelvis থেকে প্রজনন তন্ত্রের অংশ যেমন জরায়ু ও যোনি স্বাভাবিক অবস্থান থেকে নিচে নেমে আসাকে Genital Prolapse বলা হয়ে থাকে আর যখন জরায়ু নেমে আসে তখন তাকে Uterine Prolapse বা জরায়ুর স্থানচ্যুতি বলা হয়।

জরায়ুর স্থানচ্যুতি বা জরায়ু নেমে আসা - প্রকারভেদ

  • প্রথম ডিগ্রী : জরায়ুর মুখ বা সার্ভিক্স যোনিতে নেমে আসবে কিন্তু যোনি পথের বাহিরে আসবে না
  • দ্বিতীয় ডিগ্রী : এ অবস্থায় সার্ভিক্স যোনি পথের বাহিরে নেমে আসবে। দেখা যায় দাঁড়ালে বা কাশি দিলে বাইরে চলে আসবে আবার শুয়ে পড়লে ভিতরে ঢুকে যাবে
  • তৃতীয় ডিগ্রী : এ অবস্থায় সম্পূর্ণ জরায়ু যোনিপথের বাহিরে বের হয়ে আসে বিশেষ করে দাঁড়ালে কিন্তু ভেতরে যায় না 

জরায়ুর স্থানচ্যুতি বা জরায়ু নেমে আসা - কারণ

  • জন্মগত 
  • একাধিক সন্তান প্রসব
  • ডেলিভারী দীর্ঘায়িত হলে 
  • প্রসবের পর গর্ভফুল বা Placenta বের করার জন্য টানাটানি করলে
  • সন্তান প্রসবের সময় জরায়ুর মুখ সম্পূর্ণভাবে খোলার আগেই যদি অতিরিক্ত চাপ প্রয়োগ করা হয়
  • প্রসব-পরবর্তী যত্ন সঠিকভাবে না নিলে এবং ভারী জিনিস ওঠানোর কাজ করলে
  • বারবার D&C করলে
  • যোনিপথ দিয়ে জরায়ু অপারেশন করলে
  • অনেক দিন ধরে কাশি থাকলে 
  • দীর্ঘদিন কোষ্ঠকাঠিন্য থাকলে

জরায়ুর স্থানচ্যুতি বা জরায়ু নেমে আসা - লক্ষণ এবং উপসর্গ

  • তলপেটে ও যোনিপথে কোনো কিছু নিচের দিকে নেমে যাওয়ার মতো অস্বস্তিকর অনুভূতি
  • মাসিকের পথে জরায়ু বের হয়ে যাওয়া
  • কোমরে ও সহবাসের সময় ব্যথা
  • দাঁড়ালে কোমড়ে, পিঠে ব্যথা
  • প্রস্রাব ঘন ঘন হওয়া
  • প্রস্রাবে জ্বালা বা প্রস্রাব আটকে থাকা
  • পায়খানা বা প্রস্রাব করার সময় কষ্ট
  • পায়খানা বা প্রস্রাব করার সময় কি যেন বের হয়ে আসছে এমন অনুভূতি
  • কোষ্ঠকাঠিন্য অথবা পায়খানা সম্পূর্ণ হয়নি বলে অনুভূত হওয়া

জরায়ুর স্থানচ্যুতি বা জরায়ু নেমে আসা - চিকিৎসা

মূলত এই সমস্যার একমাত্র উন্নত এবং কার্যকর চিকিৎসা হোমিওপ্যাথি। এলোপ্যাথিতে নারীদের জরায়ু নেমে গেলে এটি ঠিক করার কোন কার্যকর চিকিৎসা নেই। সন্তান নিতে আগ্রহী না হলে অথবা বয়স ৫০ বছরের বেশি এবং মাসিক বন্ধ হয়ে গেছে, এমন রোগীদের জরায়ু কেটে ফেলা হয়। অথচ বয়স কম এবং সন্তান নিতে আগ্রহীদের ক্ষেত্রে জরায়ু আগের জায়গায় প্রতিস্থাপন করাই হলো চিকিৎসা। অভিজ্ঞ হোমিওপ্যাথিক চিকিৎসকের সাথে যোগাযোগ করে ধৈর্য ধরে চিকিৎসা নিলে এই সমস্যা সময়ের ব্যবধানে ঠিক হয়ে আসে।
Dr Imran
ডাঃ দেলোয়ার জাহান ইমরান
ডিএইচএমএস, ডিএমএস, বিএসসি এন্ড এমএসসি; ঢাকা
রেজিস্টার্ড হোমিওপ্যাথিক চিকিৎসক (রেজিঃ নং-৩৩৪৪২)
যোগাযোগঃ আনোয়ার টাওয়ার, আল-আমিন রোড, কোনাপাড়া, যাত্রাবাড়ী-ডেমরা রোড, ঢাকা।
Phone: +88 01671-760874; 01977-602004 || E-mail : delowaridb@gmail.com
About Me: Profile ➤ Facebook ➤ YouTube ➤