শনিবার, ১৬ ফেব্রুয়ারী, ২০১৯

ডিম্বাশয় বা ওভারিয়ান সিস্ট (Ovarian Cysts) কারণ, লক্ষণ এবং চিকিৎসা পদ্ধতি

ওভারিয়ান সিস্ট Ovarian Cysts হল ডিম্বাশয় এর মধ্যে একটি তরল ভরা থলি যা হলে নারীদের বিভিন্ন লক্ষণ ও উপসর্গ দেখা দেয়। মাঝে মাঝে উদরস্ফীতি, তলপেটে ব্যথা অথবা পিঠের নিচের অংশে ব্যথা দেখা যেতে পারে। অধিকাংশ সিস্টই ক্ষতিকর নয়। যদি সিস্টটি ফেটে যায় অথবা ডিম্বাশয় মুচড়ে যায়, প্রচন্ড ব্যথা হতে পারে। এর থেকে বমি হতে পারে অথবা দুর্বল লাগতে পারে। ওভারিয়ান সিস্ট এর হোমিও চিকিৎসা রয়েছে যার মাধ্যমে স্থায়ী ভাবে এই সমস্যা দূর হয়ে যায়। এর জন্য আপনাকে অভিজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শক্রমে চিকিৎসা নিতে হবে।

ডিম্বাশয় বা ওভারিয়ান সিস্ট (Ovarian Cysts) - কারণ

ওভারিয়ান সিস্টের কিছু কারণ হলো - অনিয়মিত ঋতুচক্র শুরু হলে, বন্ধ্যাত্ব, বংশগত ইতিহাস, ১১ বছর বা তার চেয়ে কম বয়সে ঋতুচক্র শুরু হলে, হরমনাল ইমব্যালান্স, শরীরের উপরের অংশে বেশি মেদ জমলে।

অধিকাংশ ওভারিয়ান সিস্ট যেমন ফলিকিউলার সিস্ট সমূহ অথবা করপাস লুটেয়াম সিস্ট সমূহ ডিম্বপাত এর সঙ্গে সম্পর্কযুক্ত হয়। অন্যান্য ধরনের মধ্যে আছে এন্ডোমেট্রিওসিস এর জন্য সিস্ট, ডারময়েড সিস্ট এবং সিস্টাডেনোমা সমূহ। পলিসিস্টিক ওভারিয়ান সিন্ড্রোম অসুখে দুটি ডিম্বাশয়ে অনেক ছোট ছোট সিস্ট তৈরী হয়। শ্রোণীর প্রদাহ রোগ হলেও সিস্ট তৈরী হয়। কদাচিৎ, সিস্ট ডিম্বাশয় ক্যান্সার এ পরিবর্তিত হয়। আল্ট্রাসাউন্ড দিয়ে পেলভিক পরীক্ষা করে রোগনির্ণয় করা হয় অথবা আরও অন্যান্য পরীক্ষা করে বিস্তারিত অবস্থা বোঝা যায়।

যারা ঘন ঘন এই অসুখে আক্রান্ত হয় তাদের আর সিস্ট যাতে না হয় সেজন্য হরমোনাল গর্ভ নিরোধক ব্যবহার করা যায়। যদিও, বর্তমান সিস্টের চিকিৎসা হিসাবে গর্ভ নিরোধকের প্রমাণ পাওয়া যায়নি। কয়েক মাসের মধ্যে যদি এগুলি ঠিক না হয়, বড় হয়ে যায়, অস্বাভাবিক দেখতে লাগে, বা ব্যথা হয়, তাদের কখনো কখনো অস্ত্রোপচার করে সরানো যেতে পারে। প্রজনন সময়ের মধ্যে বেশিরভাগ মহিলার প্রতি মাসে ছোট ছোট সিস্ট তৈরী হয়। রজোনিবৃত্তির আগে ৮% মহিলার বড় সিস্ট দেখা যায় যেগুলি অসুবিধা ঘটাতে পারে। রজোনিবৃত্তির পর প্রায় ১৬% মহিলার ওভারিয়ান সিস্ট থাকে এবং থাকলে সেগুলি থেকে ক্যান্সার হবার সম্ভাবনা বেশি থাকে।

ডিম্বাশয় বা ওভারিয়ান সিস্ট (Ovarian Cysts) - লক্ষণ ও উপসর্গ

যদিও নিম্নলিখিত কিছু বা সব কটি উপসর্গই থাকতে পারে, তবুও কোনো উপসর্গই নেই এই অভিজ্ঞতাও সম্ভব-
  • পেটে ব্যথা, পেটে বা শ্রোণীচক্রে হাল্কা ব্যথা, বিশেষ করে যৌনসম্পর্কের সময়
  • জরায়ু থেকে রক্তপাত, ঋতু শুরুর প্রথমে বা চলার সময়ে বা শেষে ব্যথা; অনিয়মিত ঋতু, অথবা অস্বাভাবিক রক্তপাত বা রক্তের ছিটা লাগা
  • পেট ভরে থাকা, ভারি লাগা, চাপ লাগা, পেট ফোলা, বা পেট ফাঁপা
  • যখন ডিম্বাশয় তে একটি সিস্ট ফেটে যায়, তলপেটের একপাশে হঠাৎ ও তীব্র ব্যথা হতে পারে
  • মূত্রত্যাগ এর ঘটনের সংখ্যা এবং সহজতায় পরিবর্তন (যেমন মূত্রস্থলী) সম্পূর্ণরূপে খালি করায় অক্ষমতা, অথবা সংলগ্ন শ্রোণীচক্র এ চাপের কারণে বাওয়েল মুভমেন্ট এ অসুবিধা
  • ধাতগত উপসর্গ সমূহ যেমন অবসাদ, মাথাব্যাথা ইত্যাদি
  • বমি ভাব বা বমি
  • ওজন বৃদ্ধি

ডিম্বাশয় বা ওভারিয়ান সিস্ট (Ovarian Cysts) - প্রতিরোধ 

কিছু উপায় আছে যাতে ওভারিয়ান সিস্টের সমস্যা কিছুটা কমিয়ে দেয়া যায় - পরিমিত ও সুষম আহার ব্যায়াম ও বিশ্রাম অতিরিক্ত চাপ না নেয়া বা চাপ মুক্ত থাকা হরমোনাল ব্যালেন্স বজায় রাখা, প্রয়োজনে এক্সপার্ট চিকিৎসকের পরামর্শক্রমে হোমিও চিকিৎসা চিকিৎসা গ্রহণ করা। সচেতনতা ও সময়নুযায়ী একটি প্রপার হোমিও চিকিৎসাই আপনাকে এ সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে পারে।
Dr Imran
ডাঃ দেলোয়ার জাহান ইমরান
ডিএইচএমএস (বিএইচএমসি এন্ড হসপিটাল), ডিএমএস; ঢাকা
রেজিস্টার্ড হোমিওপ্যাথিক চিকিৎসক (রেজিঃ নং-৩৩৪৪২)
যোগাযোগঃ আনোয়ার টাওয়ার, আল-আমিন রোড, কোনাপাড়া, যাত্রাবাড়ী-ডেমরা রোড, ঢাকা।
Phone: +88 01671-760874; 01977-602004 || E-mail : delowaridb@gmail.com
About Me: Profile ➤ Facebook ➤ YouTube ➤