Asthma লেবেলটি সহ পোস্টগুলি দেখানো হচ্ছে৷ সকল পোস্ট দেখান
Asthma লেবেলটি সহ পোস্টগুলি দেখানো হচ্ছে৷ সকল পোস্ট দেখান

সোমবার, ৩১ মে, ২০২১

১৫ বছরের অ্যাজমা নির্মূল! হাঁপানি, শ্বাসকষ্ট রোগের আধুনিক চিকিৎসা

আপনারা হয়তো জানেন, এলোপ্যাথিতে অ্যাজমা, হাঁপানি, শ্বাসকষ্ট নির্মূলের স্থায়ী কোন চিকিৎসা নেই। হাঁপানি রোগে তীব্র শ্বাসকষ্টের মুহূর্তে সাময়িক সময়ের জন্য কষ্ট লাঘব করার ঔষধ থাকলেও এর কোন স্থায়ী সমাধান আজ পর্যন্ত এলোপ্যাথি আবিষ্কার করতে পারেনি। অন্যান্য ক্রনিক ডিজিসের মতো এই সমস্যায়ও এলোপ্যাথিক মেডিক্যাল মাফিয়ারা রোগ পুষে রেখে সারাজীবন ধরে মানুষের সাথে বিজনেসের নীতিতে চলছে। তাছাড়া শ্বাসকষ্ট নিয়ন্ত্রণে রাখার জন্য এলোপ্যাথিক ক্ষতিকর স্টেরয়েড জাতীয় ওষুধসহ অন্যান্য রাসায়নিক ঔষধের দীঘদিন যাবৎ ক্রমাগত প্রয়োগে বিভিন্ন পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ায় আরো জটিল প্রকৃতির স্বাস্থ্য সমস্যার সৃষ্টি হবে সেটাও অস্বাভাবিক নয়। অথচ প্রপার হোমিওপ্যাথিক চিকিৎসায় দীর্ঘদিনের পুরাতন অ্যাজমা বা হাঁপানি নির্মূল হয়ে যায় চিরতরে।

ইতিমধ্যেই আপনারা জেনেছেন, আমরা যে সব রোগে আক্রান্ত হয়ে থাকি সেগুলি মূলত আমাদের DNA তে প্রিডোমিনেন্ট কিছু True Disease এর তৈরী করা কিছু লক্ষণ বা উপসর্গ। ঠিক তেমনি অ্যাজমা বা হাঁপানি সমস্যার মূলেও রয়েছে True Disease. অধিকাংশ ক্ষেত্রেই আমরা দেখে থাকি - যারা এই সমস্যায় আক্রান্ত হন তারা মূলত Tubercular Diathesis এর পেশেন্ট। বর্তমান বিশ্বে একমাত্র হোমিওপ্যাথিই আপনার DNA তে প্রিডোমিনেন্ট True Disease কে ডায়নামিক হোমিও ঔষধ প্রয়োগের মাধ্যমে রিসিসিভ করতে পারে আর তাই হোমিও চিকিৎসায় অ্যাজমা বা হাঁপানি স্থায়ী ভাবে নির্মূল হয়ে যায়। তবে এক্ষেত্রে আপনাকে দক্ষ একজন হোমিও চিকিৎসক নির্বাচন করতে হবে যিনি হোমিওপ্যাথিক নিয়মনীতি অনুসারে আপনাকে যথাযথ চিকিৎসা দিতে পারবেন।

অপরদিকে এলোপ্যাথি স্থানিক ভাবে শ্বাসপথে বায়ু চলাচলে বাধাকে সাময়িক ভাবে দূর করে শ্বাসকষ্টের উপশম ঘটায় মাত্র স্থায়ীভাবে আদৌ হাঁপানি নির্মূল করতে পারে না। কারণ এলোপ্যাথিক চিকিৎসা শাস্ত্র আপনার DNA তে প্রিডোমিনেন্ট True Disease কে নির্ণয় করে সেটিকে রেসিসিভ করার চিকিৎসা দিতে সম্পূর্ণ ব্যর্থ। আর তাই শ্বাসপথে বায়ু চলাচলে বাধাকে এলোপ্যাথিক পদ্ধতিতে দূর করলে কিছুটা সময় পর আবার সেখানে একই বাধা তৈরী হয়ে শ্বাসকষ্ট সমস্যার সৃষ্টি করে।
একজন অ্যাজমা পেশেন্টের ভয়াভয় প্রকৃতির হাঁপানি বা শ্বাসকষ্টের সমস্যা ছিল। যিনি প্রায় ১৫ বছর ধরে এই সমস্যায় ভুগছিলেন। দিনে ৫ বার ইনহেলার নেয়া লাগলো এবং সাথে শ্বাসকষ্টের জন্য এলোপ্যাথিক ঔষধও খাওয়া লাগতো। দীর্ঘদিন যাবৎ এলোপ্যাথিক ওয়ান টাইম রাসায়নিক ঔষধ ক্রমাগত ব্যবহারের ফলে মানুষিক সমস্যাসহ শরীরে আরো জটিল জটিল সমস্যা জেগে উঠা শুরু করলে তিনি এক সময় হোমিও চিকিৎসার তথ্যাবধানে চলে আসেন। মাত্র ৫ মাসের প্রপার হোমিও চিকিৎসায় তিনি ক্রনিক অ্যাজমা এবং মানুষিক সমস্যা থেকে চিরতরে মুক্তি লাভ করেন।
বিস্তারিত

সোমবার, ১৫ ফেব্রুয়ারী, ২০২১

অ্যাজমা Asthma - কারণ, লক্ষণ এবং হাঁপানি থেকে মুক্তির উপায়

অ্যাজমা Asthma শ্বাসকষ্ট সমস্যার কারণ, লক্ষণ এবং হাঁপানি থেকে মুক্তির উপায় সম্পর্কে বিস্তারিত থাকছে আজকের পর্বে। হাঁপানি বলতে আমরা বুঝি শ্বাসপথে বায়ু চলাচলে বাধা সৃষ্টির জন্য শ্বাসকষ্ট Dyspnoea. সারা বিশ্বের প্রায় ১৫ কোটিরও বেশি মানুষ অ্যাজমা বা হাঁপানীতে আক্রান্ত হচ্ছে। বাংলাদেশে প্রতি বছর ৫০ হাজার লোক এই রোগে আক্রান্ত হয়ে থাকে। শ্বাসনালির প্রদাহজনিত জটিল একটি সমস্যা হল এই অ্যাজমা। শ্বাসনালিতে বিভিন্ন কোষ প্রধানত ইওসিনোফিল ও অন্যান্য উপাদান জমা হয়ে শ্বাসনালির ছিদ্র পথ সরু হয়ে যায়। রোগী শ্বাসকষ্টসহ শুকনো কাশি, বুকে কফ জমে যাওয়া, শ্বাস নেওয়ার সময় বুকে শোঁ শোঁ আওয়াজ হওয়া ইত্যাদি সমস্যায় ভুগতে থাকে। শীতকালে শুষ্ক ঠান্ডা আবহাওয়া বাতাসে উড়ে বেড়ানোয় ধূলিকণার আধিক্যে অ্যাজমা রোগীদের কষ্ট বেড়ে যেতে দেখা যায়।

অ্যাজমা Asthma - মূল কারণ

ইতিপূর্বে যারা আমার লেখা পড়েছেন তারা হয়তো জেনেছেন, আমরা যে সব রোগে আক্রান্ত হয়ে থাকি সেগুলি মূলত আমাদের DNA তে প্রিডোমিনেন্ট কিছু True Disease এর তৈরী করা কিছু লক্ষণ বা উপসর্গ। ঠিক তেমনি অ্যাজমা Asthma বা হাঁপানি সমস্যার মূলেও রয়েছে True Disease. অধিকাংশ ক্ষেত্রে আমরা দেখি যারা এই সমস্যায় আক্রান্ত হন তারা মূলত Tubercular Diathesis এর পেশেন্ট। 
বর্তমান বিশ্বে একমাত্র হোমিওপ্যাথিই আপনার DNA তে প্রিডোমিনেন্ট True Disease কে ডায়নামিক হোমিও ঔষধ প্রয়োগের মাধ্যমে রিসিসিভ করতে পারে আর তাই হোমিও চিকিৎসায় অ্যাজমা বা হাঁপানি স্থায়ী ভাবে নির্মূল হয়ে যায়। 
তবে এক্ষেত্রে আপনাকে দক্ষ একজন হোমিও চিকিৎসক নির্বাচন করতে হবে যিনি হোমিওপ্যাথিক নিয়মনীতি অনুসারে আপনাকে যথাযথ চিকিৎসা দিয়ে আপনার DNA তে প্রিডোমিনেন্ট True Disease কে রিসিসিভ করবেন। 
অ্যাজমা Asthma - কারণ, লক্ষণ এবং হাঁপানি থেকে মুক্তির উপায়
যারা অ্যাজমা বা হাঁপানিতে আক্রান্ত হন বিভিন্ন পরিবেশগত বা পরিপোষক কারণে তাদের শ্বাসকষ্ট বেড়ে যেতে পারে যেমনঃ ঘরের উপাদানের থাকা ক্ষুদ্র কীট, ধুলাবালি, গাছ-আগাছা, ফুলের পরাগরেণু, পশুপাখির পালক, কীটপতঙ্গ ইত্যাদি হাঁপানি রোগীদের শ্বাসকষ্ট বৃদ্ধির ক্ষেত্রে ট্রিগার করে থাকে। 

অ্যাজমা Asthma - লক্ষণ ও উপসর্গ

  • শ্বাসকষ্ট হওয়া 
  • হাঁটলে বা সিঁড়ি দিয়ে ওঠানামা করলে শ্বাসকষ্ট শুরু হওয়া
  • বুকে কফ জমে যাওয়া
  • বুকে সাঁ-সাঁ শব্দে কষ্টসহ শ্বাস নেয়া 
  • শ্বাস নেওয়ার সময় বাঁশির মতো শব্দ হওয়া  
  • শুকনো কাশি বা কফযুক্ত কাশি
  • রাতে ঘুমানোর সময় কাশি বেড়ে যাওয়া
  • বুক ভার হয়ে থাকা
  • বুকে চাপ ধরা বা দমবন্ধ অনুভব করা 

অ্যাজমা Asthma -স্থায়ী চিকিৎসা হোমিওপ্যাথি

আপনারা হয়তো জানেন, এলোপ্যাথিতে অ্যাজমা বা হাঁপানি নির্মূলের স্থায়ী কোন চিকিৎসা নেই। অন্যান্য ক্রনিক ডিজিসের মতো এই সমস্যায় ও এলোপ্যাথি রোগ পুষে রেখে সারাজীবন ধরে আপনার সাথে বিজনেসের নীতিতে চলবে এটাই স্বাভাবিক। তাছাড়া শ্বাসকষ্ট নিয়ন্ত্রণে রাখার জন্য এলোপ্যাথিক ক্ষতিকর স্টেরয়েড জাতীয় ওষুধসহ অন্যান্য রাসায়নিক ঔষধের দীঘদিন যাবৎ ক্রমাগত প্রয়োগে বিভিন্ন পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ায় আরো জটিল প্রকৃতির স্বাস্থ্য সমস্যার সৃষ্টি হবে সেটাও অস্বাভাবিক নয়।

ইতিমধ্যেই আপনারা জেনেছেন, আমরা যে সব রোগে আক্রান্ত হয়ে থাকি সেগুলি মূলত আমাদের DNA তে প্রিডোমিনেন্ট কিছু True Disease এর তৈরী করা কিছু লক্ষণ বা উপসর্গ। ঠিক তেমনি অ্যাজমা বা হাঁপানি সমস্যার মূলেও রয়েছে True Disease. অধিকাংশ ক্ষেত্রেই আমরা দেখে থাকি - যারা এই সমস্যায় আক্রান্ত হন তারা মূলত Tubercular Diathesis এর পেশেন্ট। বর্তমান বিশ্বে একমাত্র হোমিওপ্যাথিই আপনার DNA তে প্রিডোমিনেন্ট True Disease কে ডায়নামিক হোমিও ঔষধ প্রয়োগের মাধ্যমে রিসিসিভ করতে পারে আর তাই হোমিও চিকিৎসায় অ্যাজমা বা হাঁপানি স্থায়ী ভাবে নির্মূল হয়ে যায়। তবে এক্ষেত্রে আপনাকে দক্ষ একজন হোমিও চিকিৎসক নির্বাচন করতে হবে যিনি হোমিওপ্যাথিক নিয়মনীতি অনুসারে আপনাকে যথাযথ চিকিৎসা দিতে পারবেন।

অপরদিকে এলোপ্যাথি স্থানিক ভাবে শ্বাসপথে বায়ু চলাচলে বাধাকে সাময়িক ভাবে দূর করে শ্বাসকষ্টের উপশম ঘটায় মাত্র স্থায়ীভাবে আদৌ হাঁপানি নির্মূল করতে পারে না। কারণ এলোপ্যাথিক চিকিৎসা শাস্ত্র আপনার DNA তে প্রিডোমিনেন্ট True Disease কে নির্ণয় করে সেটিকে রেসিসিভ করার চিকিৎসা দিতে সম্পূর্ণ ব্যর্থ। আর তাই শ্বাসপথে বায়ু চলাচলে বাধাকে এলোপ্যাথিক পদ্ধতিতে দূর করলে কিছুটা সময় পর আবার সেখানে একই বাধা তৈরী হয়ে শ্বাসকষ্ট সমস্যার সৃষ্টি করে।

তবে একটা বিষয় আপনাকে মনে রাখতে হবে, অ্যাজমা বা হাঁপানির সমস্যা নিয়ে আপনি যখন রেজিস্টার্ড এবং দক্ষ একজন হোমিও চিকিৎসকের নিকট যাবেন, তিনি মূলত হোমিওপ্যাথিক নিয়মে ইনভেস্টিগেশন করে আপনার DNA তে প্রিডোমিনেন্ট True Disease কে নির্ণয় করে সেটি রেসিসিভ করার চিকিৎসা দিবেন। এক্ষেত্রে চিকিৎসক আপনার নিজের এবং আপনার পিতা-মাতা, দাদা-দাদি, নানা-নানীর হিস্ট্রি নিবেন অর্থাৎ আপনার নিকট আত্মীয়রা কে কোন কোন রোগে ভুগেছেন বা কে কোন কোন রোগে মারা গিয়েছেন সেগুলির বিস্তারিত তথ্যাদি নিয়ে চিকিৎসক আপনার চিকিৎসা কার্যটি শুরু করবেন। এক্ষেত্রে মূলতঃ ডাইনামিক হোমিওপ্যাথিক ঔষধ প্রয়াগের মাধ্যমে আপনাকে স্টেপ বাই স্টেপ ইম্প্রোভমেন্টের দিকে নিয়ে যাবেন এবং এক সময় আপনি অ্যাজমা বা হাঁপানির সমস্যা থেকে স্থায়ীভাবে মুক্তি লাভ করবেন ইনশা-আল্লাহ।

যা যা জেনেছেন-

  • এজমা কেন হয়
  • শ্বাসকষ্টের ঔষধ
  • এজমা কাশি
  • এজমার হোমিও ঔষধ
  • হাঁপানি থেকে মুক্তির উপায়
  • এজমা রোগের হোমিও চিকিৎসা
  • হাঁপানি রোগের লক্ষণ
  • এলার্জি ও এজমা বিশেষজ্ঞ
  • হাঁপানি হোমিও
  • হাঁপানি রোগের আধুনিক চিকিৎসা
  • হাঁপানি থেকে মুক্তির উপায়
  • হাঁপানি রোগের লক্ষণ
  • হাঁপানি হলে করণীয়
  • হাঁপানি থেকে বাঁচার উপায়
বিস্তারিত